দেবের গোপন তথ্য ফাঁ;’স করলেন অভিনেত্রী রুক্মিণী


কয়েক দিনের মধ্যেই মুক্তি পেতে যাচ্ছে কলকাতার জনপ্রিয় নায়ক দেব ও নায়িকা রুক্মিণী অভিনীত ছবি ‘কিশমিশ’। মুভির প্রচার চালাচ্ছেন এই জুটি।

টিভির পার্দায় প্রায় সব রিয়ালিটি শোর মঞ্চেই ছায়াছবির প্রচারের জন্য হাজির হচ্ছেন তারা। বাস্তবের এ জুটি সম্প্রতি হাজির হয়েছিলেন ‘দিদি নম্বর ১’-এর মঞ্চে। সিনেমার অন্যান্য কলাকুশলীও এদিন হাজির হয়েছিলেন রিয়ালিটি শোতে।

দেবের সাথে পোডিয়ামে ছিলেন অভিনেতার পর্দার মা অঞ্জনা বসু। রুক্মিণীর সাথে খেলার জন্য পোডিয়ামে ছিলেন তার পর্দার বাবা কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায়।

ছেলে হিসেবে কেমন দেব? রচনার প্রশ্নের উত্তরে অভিনেত্রী অঞ্জনা বসু বলেন, ‘দুটো ছেলেই বেশ ভালো, দেব এবং টিনটিন।’

অভিনেত্রী অঞ্জনার কথায়, টিনটিনের সাথে নিজের ছেলের বেশ মিল খুঁজে পেয়েছেন তিনি।

সিনেমায় অনেক দৃশ্যে শুট করার পর অভিনেত্রীর মনে হয়েছিল, তিনি যেন নিজের ছেলের সঙ্গেই কথা বলছেন, ‘আমার সঙ্গে আমার ছেলের যেমন বন্ডিং, আমার সঙ্গে টিনটিনেরও তেমনই বন্ডিং।’

মা হিসেবে তিনি যে বেশ কড়া, সে কথাও ফাঁ;স করেছেন। ছেলে আমেরিকায় পড়াশোনা করছে, এখান থেকে এখনও ছেলের ওপর শা;স’ন চালান বলে জানিয়েছেন।

সাথে সাথে দেব ফাঁ;স করেন, অভিনেতার মাও বেশ কড়া। রচনার প্রশ্ন— ‘তার পরও তুমি এমন কী করে হলে?’ পাশ থেকে হেসে কুটোপাটি রুক্মিণী।

অভিনেত্রী বলে ওঠেন— দেবের মা খুবই ভালো, বেশ মজার মানুষ তিনি। একই সঙ্গে ফাঁ;স করেন, মাকে এখনও ভ’য় পান দেব, সে কথা নিজেও স্বীকার করেছেন অভিনেতা।

রচনার সঙ্গে প্রথমবার ছবিতে অভিনয় করেছেন দেব। সেই সময় কলকাতায় এসেছিলেন তিনি। এর আগে মুম্বাইতে তার বেড়ে ওঠা, পড়াশোনা। পুনেতে কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়রিং পড়ে ছবির কাজ নিয়েই কলকাতা আসেন।

ছেলে সিনেমায় অভিনয় করবে, সে ক্ষেত্রে বাবার বেশ আপত্তি ছিল। কিন্তু দেবের মা এ বিষয় বেশ সাপোর্টিভ ছিলেন। অভিনেতার কথায়, দর্শকের আশীর্বাদে প্রথম তিনটি সিনেমা হিট হওয়ার পরই কলকাতাকে আরও সিরিয়াসভাবে নিতে শুরু করেন তিনি।


Leave a Reply

Your email address will not be published.